শ‍্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনা‌ :ঘূর্ণিঝড় পরবর্তী পরিস্থিতিতে সুন্দরবন এলাকায় ডায়রিয়া, ম্যালেরিয়া,চর্মরোগ সহ বিভিন্ন রোগের প্রকোপ থেকে মানুষকে সুরক্ষিত রাখতে বসল মেডিক্যাল ক্যাম্প।
বসিরহাট মহকুমার সুন্দরবন লাগোয়া ব্লক সন্দেশখালি,হিঙ্গলগঞ্জ সহ ছয়টি ব্লকের কোথাও বাঁধ ভেঙে আবার কোথাওবা বাধ উপছে নদীর নোনা জল ঢুকেছে।নোনা জলের সঙ্গে মিঠা জলের সংস্পর্শে এসে প্রচুর মাছ মরছে ।
স্থানীয়রা বলেন সূর্যের আলো উঠতেই পচন শুরু হচ্ছে মৃত জীব-জন্তুর।এই সময় পেটের রোগ,চর্মরোগ সহ বিভিন্ন রোগ হওয়ার সম্ভবনা থেকেই যায়।তাই এলাকাবাসীদের সুস্থ রাখতে হিঙ্গলগঞ্জ ব্লকের মামুদপুর হাইস্কুলে এক মেডিকেল টিম বসানো হয়।
জানা গিয়েছে এদিনের মেডিক্যাল ক্যাম্পে প্রায় ২০০০ মানুষকে করোনা বিধি মেনে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়।এই ক্যাম্পে উপস্থিত ছিলেন ইন্ডিয়ান মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান তথা রাজ্যসভার সাংসদ শান্তনু সেন সহ অন্যান্য সদস্যরা।তাছাড়াও বিনামূল্যে অক্সিমিটার, স্যানিটাইজার, মাক্স,ও ওষুধ দেওয়া হয়। খাবারের জন্য চাল,ডাল,আটা, শুকনো খাবার, দুধ ও বিস্কুট দেওয়া হয় বলে জানা গিয়েছে।